1. Eskander211@gmail.com : MEskander :
  2. rashed.2009.ctg@gmail.com : চাটগাঁইয়া খবর : চাটগাঁইয়া খবর
বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১২:০৩ পূর্বাহ্ন

রাখে আল্লাহ মারে কে ? বিমান বন্দর থেকে আসার পথে ফৌজদারহাট এলাকায় ফটিকছড়ির প্রাইভেটকারের উপর লরির কন্টেইনার চাপা, বেঁচে গেল ৫ জন

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, ৫ আগস্ট, ২০২৩
  • ১২৭ Time View

রফিকুল আলম,ফটিকছড়ি :

চট্টগ্রামের ফৌজদারহাট এলাকায় একটি প্রাইভেটকারের ওপর উল্টে পড়েছে একটি কন্টেইনার লরি। এ সময়  প্রাইভেটকারটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। ৫ আগষ্ট শনিবার  সকাল  সাড়ে ১০ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনা স্থলে এসে মুষলধারের বৃষ্টি উপেক্ষা করে উদ্ধার তৎপরতা শুরু করে। প্রাইভেটকারটি দুমড়ে-মুচড়ে গেলেও প্রাইভেটকারের ভিতরে থাকা চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি উপজেলার লেলাং ইউনিয়নের রায়পুর গ্রামের মোজাফ্ফর বাড়ীর জনৈক মো: হারুনের পুত্র  ডুবাই প্রবাসী আবু বক্কর (৪২) তার মেয়ে আবিদা আক্তার (৬) ও আবিলা আক্তার (৩),বিমানবন্দরে তাকে নিতে আসা তার শাশুর মাইজভান্ডার পশ্চিম পাড়ার আধু মেম্বার বাড়ীর মুসা আহম্মদ (৬৩) ও প্রাইভেটকারের চালক বেলাল উদ্দীন (৩২) সহ সকলকে উদ্ধার করে। তবে অলৌকিক  ভাবে সবাই বেঁচে আছেন।

এ ঘটনায় আবিদা ও আবিলা অক্ষতাবস্থায় থাকলে ও অন্যরা মাথায় ও বুকে আঘাত পেয়েছেন। তবে সবাই আশঙ্কামুক্ত বলে পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে। স্থানীয় ইউপি সদস্য মো: ইউনুছ, প্রবাসী আবু বক্করের  বড় ভাই মুহাম্মদ হাসান ও চাচতো ভাই সুমন জানান, এক বছর পর প্রবাস থেকে শনিবার ( ৫ আগষ্ট) দেশে আসছিলেন আবু বক্কর। চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর হতে তাকে বাড়ীতে নিয়ে আসতে প্রাইভেটকার নিয়ে তার শাশুর ও দুই সন্তান বিমান বন্দরে যায় । আজ (৫ আগষ্ট) সকালে চট্টগ্রাম বিমানবন্দর থেকে একটি প্রাইভেটকারে বাড়ি ফিরছিলেন তারা। বাড়ীতে আসার পথে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ফৌজদারহাট ক্যাডেট কলেজ অতিক্রম করার সময় হঠাৎ এক স্কুলছাত্র রাস্তা পার হওয়ার জন্য দৌড় দেয়। এ সময় প্রাইভেটকারটির চালক কড়া ব্রেক করে। অন্যদিকে পেছনে থাকা আরেকটি কন্টেইনারবাহী লরি ও কড়া ব্রেক করে। এ সময় লরিটি কাত হয়ে প্রাইভেটকারের ওপর পড়ে। এতে কারটি চ্যাপ্টা হয়ে যায়।

প্রাইভেটকারে থাকা যাত্রীরা চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন ফায়ার সার্ভিসে খবর দেন। তারা এসে ক্রেন দিয়ে লরিটি সরিয়ে কাটার  দিয়ে প্রাইভেটকারের কিছু অংশ কেটে অক্ষতাবস্থায় আবিদা ও আবিলাকে প্রথমে উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। পরে অন্যদের উদ্ধার করে। প্রবাসী আবু বক্কর চিকিৎসাধীন ও সবাই শঙ্কামুক্ত বলে পরিবার সূত্রে নিশ্চিত হওয়া গেছে । এদিকে দূর্ঘটনার সংবাদ পেয়ে প্রবাসী আবু বক্করের পরিবার ও স্বনদের বুকফাটা আর্তনাধে এক হৃদয় বিধারক দৃশ্যের অবতারনা হয়। তাদের উদ্ধারের পর পরিবার ও স্বজনদের মনে স্বস্তি ফিরে আসে। চট্টগ্রাম ফায়ার সার্ভিসের উপপরিচালক ফিরোজ আলম  জানান, ‘আমরা খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখি লরিটি উল্টে প্রাইভেটকারের ওপর পড়ে আছে। পরে লরিটি অপসারণ করে প্রাইভেটকারের চালক সহ পাঁচ জনকে উদ্ধার করি। লরিটি ধীরে ধীরে পড়ায় আল্লাহর রহমতে প্রাইভেটকারে থাকা সবাই বেঁচে গেছেন।’ এ সময় ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আবিদা ও আলিবা উদ্ধার করে বুকে নিয়ে খুশিতে আত্নহারা হয়ে উঠে। উদ্ধারের সময় উপস্থিত কয়েক শত মানুষ বলতে থাকেন ‘রাখে আল্লাহ মারে কে ?



Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category

বিজ্ঞাপন

© All rights reserved © 2017 chatgaiyakhobor.Com